শীতের শুষ্কতায় ত্বকের যত্ন!

শীত এলেই প্রকৃতি বদলে যায়।বদলে যায় হাওয়া। গাছের পাতা ঝরে,নদীতে আসে স্থবিরতা। প্রকৃতির সেই প্রভাব পড়ে মানুষের উপরও।পাতা ঝরা দিনগুলো রুক্ষতার ছাপ ফেলে যায় ত্বকের উপর। ঠোঁট ফেটে যায়,পায়ের গোড়ালি থেকে চামড়া উঠতে থাকে,চুল ভরে ওঠে খুশকিতে।তবে কিছু নিয়ম মেনে চললেই রুক্ষতার দিনেও কোমল ও স্নিগ্ধ থাকবে শরীর ও মন।

আসুন জেনে নেই শীতে সহজ উপায়ে শরীরের যত্ন সম্পর্কে:

মুখের যত্ন
শীতকালে ত্বক নিষ্প্রাণ ও কালচে হয়ে পড়ে। ত্বকের প্রয়োজন একটু বাড়তি যত্ন। যারা সারাদিন বাইরে কাজ করেন, তাদের ত্বকে গাড়ির ধোঁয়া ধুলোবালি ইত্যাদি জমা হয়। সন্ধ্যা বা রাতে বাড়ি ফেরার পর সারাদিনের জমে থাকা ময়লা এবং ব্যবহৃত মেকআপ ভালো করে ত্বক থেকে উঠিয়ে নেয়া জরুরি।অস্বাভাবিক পরিবেশ দূষণে মুখে ধুলাবালি জমা হয় এগুলো ত্বকে জমিয়ে রেখে দিলে,ময়লা তুলে না ফেললে ত্বকের ছিদ্রগুলো বন্ধ হয়ে যাবে। ত্বক স্বাভাবিকভাবে শ্বাস নিতে পারবে না। যার ফলে ব্রণ, ব্ল্যাককহেডস বা কালো কালো দাগ সহ ত্বকের আরো অন্যান্য সমস্যা দেখা দিতে পারে।

শীতের রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে অবশ্যই ত্বক পরিষ্কার করে নেয়া প্রয়োজন। এজন্য প্রথমে অলিভ অয়েল বা বেবি অয়েল দিয়ে মুখ ভালো করে ম্যাসাজ করে নিতে হবে। এরপর কুসুম গরম পানিতে কাপড় ভিজিয়ে মুখটা মুছে ফেলুন। পরে ভালো কোনো ফেসওয়াশ দিয়ে মুখ ধুয়ে নিন। ঘুমন্ত অবস্থায় মেটাবলিজমও কম হয়, ত্বক থাকে অনেক আরামে। তাছাড়া ৭-৮ ঘণ্টা টানা ঘুমানোর কারণে ক্রিম কার্যকর হবার মতো সময় পায়। তাই ঘুমানোর আগে ভালো মানের ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন। তবে দিনের কাজের মাঝে সময় করে নিয়ে দুই-একবার মুখ পরিষ্কার করে রাখলে ভালো হয়।

হাত ও পায়ের যত্ন